দুদকের এজহার রেকর্ড করার ক্ষমতা চ্যালেঞ্জ করে রিট

রাজনীতি

দূর্নীতি দমন কমিশনের এজহার রেকর্ড করার ক্ষমতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট দায়ের করেছেন সুপ্রিম কোর্টের দুই আইনজীবী। অ্যাডভোকেট সুবীর নন্দী দাস ও ব্যারিস্টার নওশীন নাওয়াল বুধবার হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় এ রিটটি দায়ের করেন। আগামী সপ্তাহে এ বিষয়ে শুনানি হতে পারে বলে সুবীর নন্দী দাস জানিয়েছেন।

সুবীর নন্দী দাস বলেন, দুর্নীতি দমন কমিশন আইনে আছে তারা শুধু কোনো অভিযোগের তদন্ত বা অনুসন্ধান করতে পারবে। কিন্ত দুর্নীতি দমন বিধিমালা ২০১৯ (সংশোধীত) বলা হয়েছে, তারা নিজেই কোনো অভিযোগ মামলা হিসেবে রেকর্ড করতে পারবে। এ বিষয়টি চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট দায়ের করেছি। আগামী সপ্তাহে এ বিষয়ে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট বেঞ্চে শুনানি হতে পারে।

এদিকে রিটের বিষয়ে জানতে চাইলে দুদক আইনজীবী খুরশীদ আলম খান বলেন, রিটের কপি পেয়েছি। তিনি বলেন, দুর্নীতি দমন বিধিমালা ২০১৯ (সংশোধীত) বলা হয়েছে, দুর্নীতির তফসিলভুক্ত সব ধরনের অপরাধের মামলা দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) নিজ দফতরে দায়ের করতে হবে। এমনকি কেউ যদি থানায় দুর্নীতির অভিযোগ করেন, সেক্ষেত্রে পুলিশ সেটি সাধারণ ডায়েরি হিসেবে রেকর্ড করবে। পরবর্তীতে তা অনুসন্ধানের জন্য দুদকে পাঠাবে। শুধু তাই নয়, দুদক চাইলে গুরুত্ব বিবেচনায় যে কোনো অভিযোগ দীর্ঘ সময় ধরে অনুসন্ধান না করে সরাসরি মামলা করতে পারবে। এটাকে তারা চ্যালেঞ্জ করেছে। আমরা এর আইনি জবাব দেব।